কেএমডিএ ও মধ্যমগ্রাম পুরসভার যৌথ উদ্যোগে ২০০০টি বাড়িতে বসলো জলের মিটার

West Bengal

lekhaka-Moumita bhattacharyya

জলের অপচয় রুখতে কেএমডিএর সঙ্গে যৌথভাবে মধ্যমগ্রাম মিউনিসিপ্যালিটি প্রত্যেক বাড়িতে জলের মিটার বসাবে। ইতিমধ্যেই মধ্যমগ্রাম পুরনিগম পাইলট প্রজেক্ট হিসাবে তাদের ১৪টি ওয়ার্ডের ২০০০টি বাড়িতে এই জলের মিটার বসিয়েছে। লক্ষ্য একটাই কোনওভাবেই যেন পানীয় জল অপচয় না হয়। অন্যান্য সমস্ত পরিবারগুলিও পর্যায়ক্রমে জলের মিটার পাবে বলে জানা গিয়েছে।

কেএমডিএ ও মধ্যমগ্রাম পুরসভার যৌথ উদ্যোগে ২০০০টি বাড়িতে বসলো জলের মিটার

পাইলট প্রজেক্টে ব্যয় ১.‌২৩ কোটি টাকা

কলকাতা পুরসভা (কেএমসি) বাদে, মধ্যমগ্রাম পৌরসভা রাজ্যের প্রথম নাগরিক সংস্থা, যা জলের অপচয় রোধ করতে অনন্য ধারণা নিয়ে আসে এবং এই ধারণার মধ্য দিয়েই নাগরিকদের মধ্যে জল সংরক্ষণ করে রাখার সচেতনতাও বাড়বে। সূত্রের খবর, মধ্যমগ্রামের পাইলট প্রজেক্টে ১.‌২৩ কোটি টাকা ইতিমধ্যেই ব্যয় হয়ে গিয়েছে। বর্তমানে মধ্যমগ্রাম পুরসভার ২৮টি ওয়ার্ডের মধ্যে ১৪টি ওয়ার্ডে জলের মিটার বসানোর কাজ হয়ে গিয়েছে। পুরসভা প্রতিদিন ৩৬ হাজার পরিবারকে জল সরবরাহ করে। ২০১৬ সালে চালু হওয়া মধ্যগ্রামে পানিয়ারা জল পরিশোধন কেন্দ্রটি প্রতিদিন ১৪ টি ওয়ার্ডে ৩৫ মিলিয়ন লিটার বিশুদ্ধ পানীয় জল সরবরাহ করে এবং বাকী ওয়ার্ডগুলিতে কূয়োর মাধ্যমে জল সরবরাহ করে। পানিয়ারা জল পরিশোধন কেন্দ্র বারাসাত ও মধ্যমগ্রামে জল সরবরাহ করে। প্রতিদিন এই দুই পুরসভায় ১৪০ মিলিয়ন লিটার বিশুদ্ধ পানীয় জল সরবরাহ হয়।

জলের মিটারের কাজ

মধ্যমগ্রামের যে ওয়ার্ডগুলিতে জলের মিটার বসানো হয়েছে, তার নাম দেওয়া হয়েছে ‘‌সম্পূর্ণ স্বয়ংক্রিয় রিডার পদ্ধতি’‌, যা নাগরিক কর্তৃপক্ষগুলিকে যে জায়গাগুলিতে পানীয় জল নষ্ট হচ্ছে সে সম্পর্কে ইঙ্গিত দেবে। এটি প্রতিটি পরিবার দ্বারা ব্যবহৃত জলের পরিমাণও নির্ধারণ করবে।

মধ্যমগ্রাম পুরসভার লক্ষ্য

মধ্যমগ্রাম পুরসভার চেয়ারম্যান রথীন ঘোষ এবং স্থানীয় বিধায়ক বলেন, ‘‌এলাকায় প্রজন্ম ও জলের দাবি নিয়ে কোনও সমতা নেই। এই ব্যবধানটি পূরণ করতে এবং জলের হ্রাস কমানোর ব্যবস্থা করার জন্য পরীক্ষামূলকভাবে জলের মিটার স্থাপনের প্রক্রিয়া শুরু করা হয়েছে। তবে মূল লক্ষ্য হল পানীয় জলের অপচয় রোধ করা।’‌ মধ্যমগ্রামের বিভিন্ন ওয়ার্ডের মানুষ তাঁদের খুশি জাহির করেছেন এবং পুরসভাকে ধন্যবাদ দিয়েছেন।

BBC

[ad_2]

Source link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button