হিন্দু ধর্মকে অবমাননা করে ফেইসবুক পোস্ট : তাহলে কি ৫৭ ধরা শুধু হিন্দুদের জন্য ?

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে হিন্দু ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করে মো. ফয়সাল আহমেদ সোহাগ নামে একটি প্রোফাইল থেকে স্ট্যাটাস দেওয়া হয়েছে। এইস্ট্যাটাস ঘিরে চলছে সমালোচনা ও নিন্দার ঝড়।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বর্তমানে ধর্মানুভূতিতে আঘাত করে স্টাটাস দেওয়া কিংবা কমেন্ট করার অভিযোগে মাঝেমধ্যেই দেশের বিভিন্ন প্রান্তে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়কে
আক্রান্ত হতে দেখা যায়। এ নিয়ে হামলা, ভাংচুর, বিক্ষোভ মিছিল এবং পরিশেষে পুলিশের হস্তক্ষেপ, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা ও গ্রেফতারের মাধ্যমে
ঘটনার আপাত সমাপ্তি ঘটে । কিন্তু ঘটনার সমান্তি ঘটলেও অসাম্প্রদায়িক চিরায়ত বাংলার সম্প্রীতির বন্ধনে ফাটল ধরানোর অপচেষ্টা একটি পক্ষ যেন সবসময়ই ব্যস্ত থাকে।

এবার একটি ধর্মীয় উস্কানিমূলক পোস্ট দিয়ে সমালোচিত হচ্ছেন ঢাকা গভর্নমেন্ট মুসলিম হাই স্কুলের ছাত্র মো. ফয়সাল আহমেদ সোহাগ । ফেসবুকে উল্লেখিত তথ্য থেকেজানা যায়, তার বাড়ি গাজীপুরে ।

মঙলবার (১২ মে) দুপুর ১২টার দিকে ফয়সাল আহমেদ সোহাগ তার ফেজবুক প্রোফাইল থেকে হিন্দুধর্মের দেবতা বিষ্ণুর মাথার উপর পা দেওয়া একটি ছবি শেয়ার
লি নিন রে “হিন্দুরা আমাদের মক্কার উপরে পা তুলেছে। আমরা কি পারিনা তাদের ভগবানের কপালে লাথি দিতে? মুসলিম ভাইয়েরা কথা বলেন ঠিক কিনা ।”

এমন ধর্মীয় অবমাননামূলবৰু পোস্ট দেখে হিন্দু সম্প্রদায়ের অগণিত ফেসবুব ব্যবহারকারী তীব্র ক্ষোভ ও নিন্দা প্রকাশ কঃরছেন একজন মন্তব্য করেছেন, যতদূর জানি মক্কা নগরীতে অে সকল অমুসলিমের প্রবে‘1ই নিষিদ্ধ ষ্ যেখানে মক্কার উপরে কোনো হিন্দু পা দেয় কীভাবে?



Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button